আজ ২৫শে শ্রাবণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ৯ই আগস্ট, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

প্রধানমন্ত্রীর জাতীয় পুরস্কার অর্জন করেছে বড়লেখার বৃক্ষবন্ধু নার্সারী

তাহমীদ ইশাদ রিপন, বড়লেখা প্রতিনিধিঃ মৌলভীবাজারের বড়লেখা উপজেলার ‘বৃক্ষবন্ধু নার্সারী’ ২০১৯ সালের প্রধানমন্ত্রীর জাতীয় পুরস্কার লাভ করেছে। বৃক্ষরোপনে এ নার্সারীটি সারা দেশের মধ্যে তৃতীয় স্থান অর্জন করেছে।

রোববার বিকেলে জাতীয় বৃক্ষমেলা-২০২২ এর সমাপনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে প্রধানমন্ত্রীর পক্ষে জাতীয় পুরস্কারের চেক ও ক্রেষ্ট প্রদান করেন পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তনমন্ত্রী মো. শাহাব উদ্দিন এমপি।

বৃক্ষরোপনে বিশেষ অবদানের জন্য প্রধানমন্ত্রীর জাতীয় পুরস্কার প্রতিযোগিতায় ‘ছ’ ক্যটাগরিতে সারা দেশে তৃতীয় স্থান অর্জন করে বড়লেখার বৃক্ষবন্ধু নার্সাারী। এর স্বীকৃতি স্বরূপ রোববার আনুষ্ঠানিকভাবে বৃক্ষবন্ধু নার্সারীর স্বত্তাধিকারী মো. সোনাহর আলীর ছেলে আইনুল ইসলামের হাতে এ জাতীয় পুরস্কারের চেক ও সম্মাননা ক্রেষ্ট তুলে দেন পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তনমন্ত্রী শাহাব উদ্দিন এমপি।

এর আগে ২০১৮ সালে বৃক্ষরোপনে বিশেষ অবদানের জন্য প্রধানমন্ত্রীর সম্মাননা ক্রেষ্ট পান বৃক্ষবন্ধু নার্সারীর স্বত্তাধিকারী বৃক্ষবন্ধু মো. সোনাহর আলী।

উল্লেখ্য, বৃক্ষপ্রেমিক সোনাহর আলী প্রায় ৪০ বছর ধরে বৃক্ষরোপনে বিশেষ অবদান রেখে চলেছেন। এর পুর্বে বড়লেখা উপজেলা প্রশাসন ও বড়লেখা রেঞ্জ সিলেট বন বিভাগের আয়োজনে নার্সারী পর্যায়ে স্থানীয়ভাবে প্রথম পুরস্কার অর্জন করে বৃক্ষবন্ধু নার্সারী তাছাড়া দেশ-বিদেশের বিভিন্ন প্রজাতির ফলজ, বনজ, ফুল এবং ঔষধী গাছের চারার সমাহার নিয়ে পৌর শহরের সরকারি কলেজ রোড সংলগ্ন বৃক্ষবন্ধু নার্সারী কয়েক বছর থেকে সফলতার সাথে ব্যবসা করে আসছে এবং নার্সারীর উদ্যোগে বৃক্ষরোপণে যথেষ্ট অবদান রাখছে।

আগারগাঁও বন ভবনের হৈমতি মিলনায়তনে বন বিভাগের প্রধান বন সংরক্ষক আমীর হোসাইন চৌধুরীর সভাপতিত্বে এবারের বৃক্ষরোপন অভিযান ও বৃক্ষমেলার সমাপনী ও প্রধানমন্ত্রীর জতীয় পুরস্কার ২০১৯-২০ প্রদান অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য দেন পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রণালয়ের উপমন্ত্রী বেগম হাবিবুন নাহার এমপি, সচিব ড. ফারহিনা আহমেদ, অতিরিক্ত সচিব (প্রশাসন) ইকবাল আব্দুল্লাহ হারুন, পরিবেশ অধিদপ্তরের মহা-পরিচালক ড. আব্দুল হামিদ, উপ-প্রধান বন সংরক্ষক মঈন উদ্দিন খান, জাতীয় বৃক্ষমেলায় প্রথমস্থান অর্জনকারী বরিশাল নার্সারীর মালিক মোহাম্মদ ইব্রাহিম প্রমুখ।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

     এ জাতীয় আরও খবর